ওয়ার্ল্ড'স লার্জেস্ট লেসন

সারা দুনিয়াব্যাপী শিশুদের কাছে বৈশ্বিক লক্ষ্যমাত্রাকে পৌঁছে দিচ্ছে ওয়ার্ল্ড’স লার্জেস্ট লেসন। সেপ্টেম্বর ২০১৫ সালে সূচনার পর থেকে ১৩০টি দেশের লাখ লাখ শিশুদের কাছে লক্ষ্যমাত্রাকে নিয়ে যেতে পেরেছে।

পাঠদান করতে, প্রকল্প চালাতে এবং লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের লক্ষ্যে পরিচালিত কর্মকাণ্ড চাঙ্গা রাখতে শিক্ষকদের জন্য আমরা বিনামূল্যের ও সৃষ্টিশীল রিসোর্স তৈরি করি। আমাদের তৈরি রিসোর্সের কেন্দ্রে আছে স্যার কেন রবিনসন কর্তৃক রচিত অ্যানিমেটেড চলচ্চিত্র। এগুলোর অ্যানিমেশন করেছেন আর্ডম্যান এবং উপস্থাপনা করেছেন শিক্ষার্থীদের অতিচেনা ও শ্রদ্ধার পাত্র ব্যক্তিবর্গ — এমা ওয়াটসন, সেরেনা উইলিয়ামস, মালালা ইউসুফজাই, কোলো তুরে, নেইমার জুনিয়র, হৃত্বিক রোশন ও ন্যান্সি আজরাম। এসব চলচ্চিত্রে লক্ষ্যমাত্রাগুলোর প্রেক্ষাপট তুলে ধরা হয় এবং এগুলো শিক্ষার্থীদের অনুপ্রেরণা যোগায় তারা যাতে তাদের সৃষ্টিশীলতা কাজে লাগিয়ে লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের জন্য সক্রিয় হয়, সহায়তা করে।

আমরা একটি অবাণিজ্যিক ক্রিয়েটিভ কমন্স লাইসেন্সের আওতায় আমাদের কার্যক্রম পরিচালনা করি। আর আপনাকে এটা ব্যাপকভাবে শেয়ার করতে উৎসাহিত করি।

প্রজেক্ট এভরিওয়ান কর্তৃক প্রযোজিত এবং ইউনিসেফ ও আরো অনেক বেসরকারি সংস্থা, ব্যক্তিখাতের প্রতিষ্ঠান ও ফাউন্ডেশনের সাথে অংশীদারির ভিত্তিতে বিতরণকৃত ওয়ার্ল্ড’স লার্জেস্ট লেসন শিক্ষার্থীদের কাছে পৌঁছে বহুমুখী চ্যানেলের মাধ্যমে। বিভিন্ন দেশের শিক্ষা মন্ত্রণালয়গুলোকে প্রতি বছর অংশগ্রহণের জন্য আমন্ত্রণ জানানো হয়। বেসরকারি সংস্থাগুলো তাদের নেটওয়ার্কের মাধ্যমে ডিজিটাল কনটেন্ট বিতরণ করে। লাভজনক ও অলাভজনক উভয় প্রকারের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানসমূহ তাদের কমিউনিটির মাধ্যমে অংশগ্রহনে উৎসাহ যোগায়।

আমাদের সাথে যোগ দিন!

"Ours can be the first generation to end poverty – and the last generation to address climate change before it is too late"

Ban Ki-moon, Secretary-General of the United Nations